ঢাকা ১০:৫৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২১ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ছিনতাইকারী চক্রের কুড়ালের কোপে ভ্যান চালকসহ আহত-২

নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ১২:২০:১০ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২৩
  • / ৬১ বার পড়া হয়েছে

কোটচাঁদপুর প্রতিনিধিঃ ছিনতাইকারী চক্রের কুড়ালের কোপে ভ্যান চালক শাহজামাল(৩৫) সহ দুই জন আহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার রাতে কোটচাঁদপুরের ভোমরাডাঙ্গা মাঠে এ ঘটনা ঘটে। বর্তমানে ভ্যান চালক ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানিয়েছেন স্বজনরা।

ভ্যান চালক শাহজামালের ভাই আশাদুল ইসলাম বলেন,মঙ্গল সন্ধ্যা রাতে  সাবদারপুর বাজার থেকে ভ্যানে দুই জন যাত্রি তোলেন। এরপর তাদের নিয়ে যান উপজেলার ভোমরাডাঙ্গা গ্রামে। তাদেরকে ওই গ্রামে নামিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ভোমরা ডাঙ্গা মাঠের মধ্যে কবলে পড়েন ছিনতাইকারী চক্রের। তারা ভ্যান চালকের টাকা মোবাইল ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেন।

এ সময় ধস্তাধস্তি হয় ছিনাকারীদের সঙ্গে। এক পর্যায় তারা শাহজামাল কে কুড়াল দিয়ে কোপ দিয়ে নগদ ২ হাজার টাকা ও মোবাইল সেটটি জিনিয়ে নেন। বেধড়ক মারপিট করেন ভ্যানে থাকা শাহজামালের ভাইপো ফয়সাল হোসেনকে। এতে সেও গুরুতর আহত হন।

শাহজামাল উপজেলার সোয়াদি গ্রামের আফসার মুন্সির ছেলে আর ফয়সাল ওই গ্রামের আশাদুল ইসলামের ছেলে। বর্তমানে ভ্যান চালক ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আর ভাইপো ফয়সাল প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়িতে আছেন।

এ ব্যাপারে কোটচাঁদপুরের লক্ষিপুর পুলিশ ফাঁড়ির সহউপপরিদর্শক (এএসআই) শামসুল আলম বলেন,ভ্যানচালক যাত্রী নিয়ে ভোমরা ডাঙ্গা গ্রামে যান। এসময় ওই ভ্যানে দুই জন যাত্রী ও তাঁর ভাইপো ছিলেন। যাত্রী নামিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ভোমরা ডাঙ্গা মাঠের মধ্যে ছিনতাইকারী চক্রের কবলে পড়েন। ওই সময় তাদের কুড়ালের ভ্যান চালক গুরুত্বর আহত হয়েছেন। মারিপিটের স্বীকার হয়েছেন ফয়সাল। এ ব্যাপারে থানার মামলার প্রস্তুুতি চলছে। অন্যদিকে আমরা আসামি ধরতে অভিযান শুরু করেছি।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

ছিনতাইকারী চক্রের কুড়ালের কোপে ভ্যান চালকসহ আহত-২

আপডেট সময় ১২:২০:১০ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২৩

কোটচাঁদপুর প্রতিনিধিঃ ছিনতাইকারী চক্রের কুড়ালের কোপে ভ্যান চালক শাহজামাল(৩৫) সহ দুই জন আহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার রাতে কোটচাঁদপুরের ভোমরাডাঙ্গা মাঠে এ ঘটনা ঘটে। বর্তমানে ভ্যান চালক ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানিয়েছেন স্বজনরা।

ভ্যান চালক শাহজামালের ভাই আশাদুল ইসলাম বলেন,মঙ্গল সন্ধ্যা রাতে  সাবদারপুর বাজার থেকে ভ্যানে দুই জন যাত্রি তোলেন। এরপর তাদের নিয়ে যান উপজেলার ভোমরাডাঙ্গা গ্রামে। তাদেরকে ওই গ্রামে নামিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ভোমরা ডাঙ্গা মাঠের মধ্যে কবলে পড়েন ছিনতাইকারী চক্রের। তারা ভ্যান চালকের টাকা মোবাইল ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেন।

এ সময় ধস্তাধস্তি হয় ছিনাকারীদের সঙ্গে। এক পর্যায় তারা শাহজামাল কে কুড়াল দিয়ে কোপ দিয়ে নগদ ২ হাজার টাকা ও মোবাইল সেটটি জিনিয়ে নেন। বেধড়ক মারপিট করেন ভ্যানে থাকা শাহজামালের ভাইপো ফয়সাল হোসেনকে। এতে সেও গুরুতর আহত হন।

শাহজামাল উপজেলার সোয়াদি গ্রামের আফসার মুন্সির ছেলে আর ফয়সাল ওই গ্রামের আশাদুল ইসলামের ছেলে। বর্তমানে ভ্যান চালক ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আর ভাইপো ফয়সাল প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়িতে আছেন।

এ ব্যাপারে কোটচাঁদপুরের লক্ষিপুর পুলিশ ফাঁড়ির সহউপপরিদর্শক (এএসআই) শামসুল আলম বলেন,ভ্যানচালক যাত্রী নিয়ে ভোমরা ডাঙ্গা গ্রামে যান। এসময় ওই ভ্যানে দুই জন যাত্রী ও তাঁর ভাইপো ছিলেন। যাত্রী নামিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ভোমরা ডাঙ্গা মাঠের মধ্যে ছিনতাইকারী চক্রের কবলে পড়েন। ওই সময় তাদের কুড়ালের ভ্যান চালক গুরুত্বর আহত হয়েছেন। মারিপিটের স্বীকার হয়েছেন ফয়সাল। এ ব্যাপারে থানার মামলার প্রস্তুুতি চলছে। অন্যদিকে আমরা আসামি ধরতে অভিযান শুরু করেছি।