ঢাকা ১১:০৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২১ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমারের মালামাল উদ্ধার আটক- ২

নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০১:১৩:১৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৩
  • / ২১২ বার পড়া হয়েছে

বিশেষ প্রতিনিধিঃ শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের অভিযানে চোরাই হওয়া বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমারের মালামাল উদ্ধারসহ দুই জন চোর গ্রেফতার।

গত ১২/০/২০২৩ খ্রি. তারিখ রাত আনুমানিক ১.০০ ঘটিকা হইতে ৫.০০ ঘটিকার মধ্যে যে কোন সময় শ্রীমঙ্গল থানাধীন বালিশিরা পুঞ্জি (জেরিন) সাকিনের ০১টি ১০ কেভিএ বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমার মূল্য ৫৯,৭৫০/-টাকা অজ্ঞাতনামা চোর/চোরেরা চুরি করিয়া নিয়া যায়। উক্ত বিষয়ে জনাব ক্লিনটন তালুকদার এজিএম (প্রশাসন) মৌলভীবাজার পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি, শ্রীমঙ্গল মৌলভীবাজার থানায় লিখিত এজাহার দায়ের করিলে থানায় একটি চুরি মামলা রুজু হয়।

অফিসার ইনচার্জ, শ্রীমঙ্গল থানা মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার মহোদয়ের সার্বিক দিক নির্দেশনা মোতাবেক মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই রাকিবুল হাছান সঙ্গীয় অন্যান্য অফিসার ফোর্সের সহায়তায় অভিযান পরিচালনা করিয়া সন্ধিত্ব হিসেবে আসামী ১। মো: সিপন মিয়া (৩০), পিতা-মোঃ আব্দুল হক, মাতা- মোছাঃ রহিমা খাতুন, সাং-জাম্বুরাছড়া, থানা-শ্রীমঙ্গল, জেলা- মৌলভীবাজারকে ১৪/০১/২০১৩ খ্রি. তারিখ ১৭,১০ ঘটিকার সময় গ্রেফতার করেন। আসামী সিপন মিয়াকে মামলার ঘটনার বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করিলে সে ঘটনায় অড়িত থাকার কথা স্বীকার করে তাহার সাথে থাকা অন্যান্য আসামীদের নাম ঠিকানা প্রকাশ করে। আসামী সিপন মিয়ার দেওয়া তথ্য মতে অভিযান পরিচালনা করিয়া আসায়ী ২। মোঃ লাভলু মিয়া (২৭), পিতা-মোঃ আঙ্গুর মিয়া, মাতা-মোছাঃ লিপি বেগম, সাং-উত্তর সুর, থানা-শ্রীমঙ্গল, জেলা- মৌলভীবাজারকে ১৪/০১/২০২৩খ্রি. তারিখ ১৬.৩০ ঘটিকার সময় গ্রেফতার করা হয়।

আসামীদের দেওয়া তথ্য মতে ১নং আসামী সিপন মিয়াকে সাথে নিয়া তাহার দেখানো মতে হবিগঞ্জে জেলার বাহুবল থানাধীন ৩নং সাতকাপন ইউনিয়নের মুককান্দি গ্রামের ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পশ্চিম পার্শ্বে জনৈক সালাউদ্দিন মিয়ার ভাড়া বাসা হইতে চোরাই হওয়া লোহার তৈরী ১টি বৈদ্যুতি ট্রান্সফরমারের খালি ড্রাম এবং ০৬ কেজি তামার তার উদ্ধার পূর্বক জব্দ করা হয়।

অদ্য ১৫/০১/২০২৩খ্রি: তারিখ আসামীদের যথাযথ পুলিশ স্কটের মাধ্যমে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরন করা হইলে আসামী ১। মো: সিপন মিয়া (৩০), ২। মোঃ লাভলু মিয়া (২৭), তাহারা উভয়ে মামলার ঘটনায় জড়িত থাকার বিষয়ে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেন।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমারের মালামাল উদ্ধার আটক- ২

আপডেট সময় ০১:১৩:১৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৩

বিশেষ প্রতিনিধিঃ শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের অভিযানে চোরাই হওয়া বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমারের মালামাল উদ্ধারসহ দুই জন চোর গ্রেফতার।

গত ১২/০/২০২৩ খ্রি. তারিখ রাত আনুমানিক ১.০০ ঘটিকা হইতে ৫.০০ ঘটিকার মধ্যে যে কোন সময় শ্রীমঙ্গল থানাধীন বালিশিরা পুঞ্জি (জেরিন) সাকিনের ০১টি ১০ কেভিএ বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমার মূল্য ৫৯,৭৫০/-টাকা অজ্ঞাতনামা চোর/চোরেরা চুরি করিয়া নিয়া যায়। উক্ত বিষয়ে জনাব ক্লিনটন তালুকদার এজিএম (প্রশাসন) মৌলভীবাজার পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি, শ্রীমঙ্গল মৌলভীবাজার থানায় লিখিত এজাহার দায়ের করিলে থানায় একটি চুরি মামলা রুজু হয়।

অফিসার ইনচার্জ, শ্রীমঙ্গল থানা মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন সরদার মহোদয়ের সার্বিক দিক নির্দেশনা মোতাবেক মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই রাকিবুল হাছান সঙ্গীয় অন্যান্য অফিসার ফোর্সের সহায়তায় অভিযান পরিচালনা করিয়া সন্ধিত্ব হিসেবে আসামী ১। মো: সিপন মিয়া (৩০), পিতা-মোঃ আব্দুল হক, মাতা- মোছাঃ রহিমা খাতুন, সাং-জাম্বুরাছড়া, থানা-শ্রীমঙ্গল, জেলা- মৌলভীবাজারকে ১৪/০১/২০১৩ খ্রি. তারিখ ১৭,১০ ঘটিকার সময় গ্রেফতার করেন। আসামী সিপন মিয়াকে মামলার ঘটনার বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করিলে সে ঘটনায় অড়িত থাকার কথা স্বীকার করে তাহার সাথে থাকা অন্যান্য আসামীদের নাম ঠিকানা প্রকাশ করে। আসামী সিপন মিয়ার দেওয়া তথ্য মতে অভিযান পরিচালনা করিয়া আসায়ী ২। মোঃ লাভলু মিয়া (২৭), পিতা-মোঃ আঙ্গুর মিয়া, মাতা-মোছাঃ লিপি বেগম, সাং-উত্তর সুর, থানা-শ্রীমঙ্গল, জেলা- মৌলভীবাজারকে ১৪/০১/২০২৩খ্রি. তারিখ ১৬.৩০ ঘটিকার সময় গ্রেফতার করা হয়।

আসামীদের দেওয়া তথ্য মতে ১নং আসামী সিপন মিয়াকে সাথে নিয়া তাহার দেখানো মতে হবিগঞ্জে জেলার বাহুবল থানাধীন ৩নং সাতকাপন ইউনিয়নের মুককান্দি গ্রামের ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পশ্চিম পার্শ্বে জনৈক সালাউদ্দিন মিয়ার ভাড়া বাসা হইতে চোরাই হওয়া লোহার তৈরী ১টি বৈদ্যুতি ট্রান্সফরমারের খালি ড্রাম এবং ০৬ কেজি তামার তার উদ্ধার পূর্বক জব্দ করা হয়।

অদ্য ১৫/০১/২০২৩খ্রি: তারিখ আসামীদের যথাযথ পুলিশ স্কটের মাধ্যমে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরন করা হইলে আসামী ১। মো: সিপন মিয়া (৩০), ২। মোঃ লাভলু মিয়া (২৭), তাহারা উভয়ে মামলার ঘটনায় জড়িত থাকার বিষয়ে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেন।