ঢাকা ১২:৫৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্যু

নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৬:৩০:৩০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ অক্টোবর ২০২৩
  • / ৪৪৪ বার পড়া হয়েছে
সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্য
আবুল কাশেম রুমন,সিলেট: সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্যু খবর পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে সিলেটের দক্ষিণ সুরমায়।
জিলুর রহমান (৪০) নামের ওই যুবদল কর্মী মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) বেলা ১টার দিকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। এর আগে ওই দিন সকাল সাড়ে আটটায় দক্ষিণ সুরমার লালাবাজার এলাকায় পুলিশের ধাওয়া খেয়ে মোটর সাইকেল উল্টে গুরুতর আহত হন তিনি।
এই ঘটনায় সালাহ উদ্দিন নামের আরও একজন হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন।
নিহত জিল্লু সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার মদন গৌরী এলাকার এলাই মিয়ার ছেলে ও গোলাপগঞ্জ যুবদলের আহবায়ক কমিটির সদস্য ছিলেন বলে জানা গেছে।
বিএনপি সূত্রে জানা যায়, বিএনপির ডাকা অবরোধ সফলে  ১০টি মোটরসাইকেলের বহর নিয়ে মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) সকালে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের লালাবাজারে অবস্থান নেন জিলু। এ সময় পুলিশ তাদের ধাওয়া ৎ দেয়। এক পর্যায়ে মোটর সাইকেলসহ পড়ে গিয়ে গুরুতর আহত হন তিনি। এরপর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে পরবর্তীতে তার মৃত্যু ঘটে। এ ঘটনায় জিলুর সহকর্মী সালাহ উদ্দিন গুরুতর আহত হয়েছে। সালাহ উদ্দিন দক্ষিণ সিলাম ইউনিয়ন যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক।
সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট এমরান আহমদ চৌধুরী জানান, অবরোধ কর্মসূচি পালন করতে সকালে মোটরসাইকেল নিয়ে দক্ষিণ সুরমার লালাবাজার যাযন গোলাপগঞ্জ যুবদলের আহবায়ক কমিটির সদস্য দিলু আহমদ দিলু। এ সময় পুলিশের একটি গাড়ি ধাওয়া দেয়। এতে ঘটনাস্থলে গুরুতর আহত হন দুজন। পরে জিলুকে গ্রেফপ্তার করে থানায় নিয়ে আনা হয়। বেলা দুইটার দিকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু খবর আসে।
সিলেট জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মকসুদ আহমদ জানান, জিলুকে গুরুতর আহত অবস্থায় পুলিশ আটক করে নিয়ে যায। এরপর তার মৃত্যুর খবর এসেছে। জিলুকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করা হযেছে বলে দাবি করেন তিনি।
সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ফাঁড়ির পুলিশ জানিয়েছে- সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে জিলু সহ দুই জন হাসপাতালের আইসিইউতে ছিলো। এর মধ্যে জিলু মারা গেছে।
ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্যু

আপডেট সময় ০৬:৩০:৩০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ অক্টোবর ২০২৩
সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্য
আবুল কাশেম রুমন,সিলেট: সিলেটে পুুলিশের ধাওয়া খেয়ে যুবদল নেতার মৃত্যু খবর পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে সিলেটের দক্ষিণ সুরমায়।
জিলুর রহমান (৪০) নামের ওই যুবদল কর্মী মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) বেলা ১টার দিকে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। এর আগে ওই দিন সকাল সাড়ে আটটায় দক্ষিণ সুরমার লালাবাজার এলাকায় পুলিশের ধাওয়া খেয়ে মোটর সাইকেল উল্টে গুরুতর আহত হন তিনি।
এই ঘটনায় সালাহ উদ্দিন নামের আরও একজন হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন।
নিহত জিল্লু সিলেটের গোলাপগঞ্জ উপজেলার মদন গৌরী এলাকার এলাই মিয়ার ছেলে ও গোলাপগঞ্জ যুবদলের আহবায়ক কমিটির সদস্য ছিলেন বলে জানা গেছে।
বিএনপি সূত্রে জানা যায়, বিএনপির ডাকা অবরোধ সফলে  ১০টি মোটরসাইকেলের বহর নিয়ে মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) সকালে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের লালাবাজারে অবস্থান নেন জিলু। এ সময় পুলিশ তাদের ধাওয়া ৎ দেয়। এক পর্যায়ে মোটর সাইকেলসহ পড়ে গিয়ে গুরুতর আহত হন তিনি। এরপর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে পরবর্তীতে তার মৃত্যু ঘটে। এ ঘটনায় জিলুর সহকর্মী সালাহ উদ্দিন গুরুতর আহত হয়েছে। সালাহ উদ্দিন দক্ষিণ সিলাম ইউনিয়ন যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক।
সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট এমরান আহমদ চৌধুরী জানান, অবরোধ কর্মসূচি পালন করতে সকালে মোটরসাইকেল নিয়ে দক্ষিণ সুরমার লালাবাজার যাযন গোলাপগঞ্জ যুবদলের আহবায়ক কমিটির সদস্য দিলু আহমদ দিলু। এ সময় পুলিশের একটি গাড়ি ধাওয়া দেয়। এতে ঘটনাস্থলে গুরুতর আহত হন দুজন। পরে জিলুকে গ্রেফপ্তার করে থানায় নিয়ে আনা হয়। বেলা দুইটার দিকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু খবর আসে।
সিলেট জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মকসুদ আহমদ জানান, জিলুকে গুরুতর আহত অবস্থায় পুলিশ আটক করে নিয়ে যায। এরপর তার মৃত্যুর খবর এসেছে। জিলুকে পরিকল্পিত ভাবে হত্যা করা হযেছে বলে দাবি করেন তিনি।
সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ফাঁড়ির পুলিশ জানিয়েছে- সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে জিলু সহ দুই জন হাসপাতালের আইসিইউতে ছিলো। এর মধ্যে জিলু মারা গেছে।